কাজের মেয়ে থেকে সোজা গায়িকা হয়ে উঠলেন ফুলঝুরি, জমিয়ে চললো ট্রোলিং

কাজের মেয়ে থেকে সোজা গায়িকা হয়ে উঠলেন ফুলঝুরি, জমিয়ে চললো ট্রোলিং

নিজস্ব প্রতিবেদন : দীর্ঘদিন পর মানালি, ইন্দ্রাশিস সহ অন্যান্য তাবড় তাবড় তারকাদের নিয়ে বিপুল প্রত্যাশা সহ শুরু হয় ‘ধুলোকণা’। লালন ফুলঝুড়ির গল্পগাথা নিয়ে এই ধারাবাহিকের প্রথম থেকেই প্রতিদ্বন্দ্বিতা শুরু হয়। কারণ এই ধারাবাহিককে প্রথম থেকেই লড়াই করতে বিপরীতে রয়েছে ‘মিঠাই’।

তবে সে যাই হোক ইতিমধ্যেই লালন ফুলঝুরির এই গল্প দর্শকদের একাংশের মন জয় করে নিয়েছে। অন্যদিকে শুরু থেকেই কঠিন লড়াই থাকলেও এই ধারাবাহিক কতটা সফল তা বলা মোটেই সম্ভব নয়। ধারাবাহিকের সফলতা নিয়ে যখন নানান প্রশ্ন উঠছে সেই সময়ে আবার হঠাৎ করে ট্রোলের মুখে পড়তে হলো ফুলঝুরিকে।

বস্তির ছেলে লালন পেশায় গাড়িচালক হলেও তার গায়ক হওয়ার স্বপ্ন রয়েছে। সে নিজে গান বাঁধে এবং গান গায়। অন্যদিকে লালন যে বাড়িতে গাড়ি চালকের কাজ করে সেই বাড়িতেই পরিচারিকার কাজ করে ফুলঝুরি। দুজনের মধ্যে প্রথম ঝগড়া দিয়ে শুরু হলেও সময়ের পরিবর্তনের সঙ্গে সঙ্গে দুজনের মধ্যে ভাব হয় এবং ভালোবাসার সম্পর্ক তৈরি হয়।

তাদের দুজনের সম্পর্ক বিয়ের মন্ডপ পর্যন্ত গড়ায় শেষ পর্যন্ত তা ভেঙ্গে যায়। মিথ্যা অপবাদ দিয়ে চড়ুই লালনকে পুলিশের হাতে তুলে দেবে এই আশঙ্কা করে বিয়ের আগে বেঁকে বসে ফুলঝুরি। আর তারপর ভুল বোঝাবুঝির জেরে ভেঙ্গে যায় সম্পর্ক। অভিমান, রাগ এবং জেদের বশে চড়ুইকে বিয়ে করতে রাজি হয় লালন। আর তারপর থেকেই শুরু হয় লালন ও ফুলঝুরির মধ্যে রেষারেষি।

<iframe src=”https://www.facebook.com/plugins/video.php?height=314&href=https%3A%2F%2Fwww.facebook.com%2Fstarjalshaofficialpage%2Fvideos%2F730337488370616%2F&show_text=false&width=560&t=0″ width=”560″ height=”314″ style=”border:none;overflow:hidden” scrolling=”no” frameborder=”0″ allowfullscreen=”true” allow=”autoplay; clipboard-write; encrypted-media; picture-in-picture; web-share” allowFullScreen=”true”></iframe>

অন্যের বাড়িতে কাজ করলেও ফুলঝুরি খুব ভালো গান লেখে এটা প্রত্যেকের জানা ছিল। কিন্তু সে যে দারুন গান গায় দর্শকদের কাছে একদম নতুন। লালনকে বোঝাতে ফুলঝুরি নিজের এই সুপ্ত প্রতিভাকে তুলে ধরার জন্য শান দিতে শুরু করেছে। আর এই কাজে তার গুরু মামা ও মামী। সম্প্রতি এই ধারাবাহিকের এমন একটি ছোট্ট ক্লিপের অংশ ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। যার পরেই শুরু হয়েছে চরম ট্রোলিং।

আরো পড়ুন