খোঁজ মিললো অনুব্রতর, ফের নোটিশ কমিশনের

খোঁজ মিললো অনুব্রতর, ফের নোটিশ কমিশনের

নিজস্ব প্রতিবেদন : অবশেষে প্রায় তিন ঘন্টা লুকোচুরি খেলার পর খোঁজ পাওয়া গেল বীরভূমের দাপুটে তৃণমূল নেতা অনুব্রত মণ্ডলের। তাকে শেষমেষ ধরা যায় বীরভূমের তারাপীঠ মন্দিরে। আর এই ঘটনার পরেই পুনরায় নির্বাচন কমিশনের তরফ থেকে তাঁকে নোটিশ করা হয়েছে।

মঙ্গলবার বিকাল পাঁচটা থেকে নির্বাচন কমিশন তাকে নজরবন্দি করে। এই নজরবন্দি শুক্রবার সকাল সাতটা পর্যন্ত চলার কথা হলেও বুধবার সকাল ১১টা থেকে হঠাৎ তিনি কমিশনের নজরদারিতে থেকে উধাও হয়ে যান। বাড়ি থেকে বের হন বিভিন্ন দলীয় কার্যালয়ে ভোটের আগে যাওয়ার জন্য। প্রথমে ছিল অনুব্রত মণ্ডলের গাড়ি এবং পরে কমিশনের আধিকারিকদের গাড়ি ও কেন্দ্রীয় বাহিনীর গাড়ি। কিন্তু হঠাৎ মাঝ পথে উধাও হয়ে যায় অনুব্রত মণ্ডলের গাড়ি।

কিন্তু এই দীর্ঘক্ষণ অনুব্রত মণ্ডল কোথায় ছিলেন? তিনি কোথায় ছিলেন তা সম্পর্কে বিভিন্ন সূত্রে বিভিন্ন রকম খবর পাওয়া যাচ্ছে। দলের কোনো একটি সূত্র দাবি করছে তিনি নানুর, লাভপুর রুটের দলীয় কার্যালয়গুলিতে গিয়েছিলেন। আবার অন্য একটি সূত্র দাবি করেছে অনুব্রত মণ্ডল বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর সাঁইথিয়া, মল্লারপুরে দলীয় কার্যালয় হয়ে তারাপীঠ মন্দিরের তারা মায়ের পূজা দিতে আসেন। তারা মায়ের পূজা দেওয়ার সময় আগে থেকেই তারাপীঠ মন্দিরে উপস্থিত থাকতে দেখা যায় রাজ্যের কৃষিমন্ত্রী আশিস বন্দোপাধ্যায়কে।


ঘটনার পরেই কমিশনের তরফ থেকে ফের একটি নোটিশ দেওয়া হয় অনুব্রত মণ্ডলকে। কমিশনের তরফ থেকে বীরভূম জেলা শাসককে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে অনুব্রত মণ্ডলকে যেন দ্রুত নোটিশ দেওয়া হয় এই নজরদারি তিনি এড়িয়ে চলতে পারবেন না। নজরদারি মানতেই হবে। তবে এই ঘটনার পর কমিশনের ভূমিকা নিয়েও নানান প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে।

আরো পড়ুন