নম্বরপ্লেটে লেখা SEX, সাধের স্কুটিই মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে তরুণীর

নম্বরপ্লেটে লেখা SEX, সাধের স্কুটিই মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে তরুণীর

নিজস্ব প্রতিবেদন : কাজের তাগিদে ছাড়াও শখ করেই মানুষ দু’চাকা, চার চাকা ইত্যাদি যান কিনে থাকেন। কিন্তু নম্বর প্লেটের কারণে কখনো এই যান মাথাব্যথার কারণ হয়ে উঠতে পারে, এমন ঘটনা নজিরবিহীন। নজিরবিহীন ঘটনা হলেও সম্প্রতি এমনই এক ঘটনা ঘটেছে এক তরুণীর ক্ষেত্রে, যে কারণে ওই তরুণী তার সাধের স্কুটি বাড়ি থেকে বের করা তো দূরের কথা বরং মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

যানবাহনের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অংশ হলো নম্বর প্লেট। এই নম্বর প্লেট দেওয়া হয়ে থাকে পরিবহণ দপ্তরের আরটিও অফিসের তরফ থেকে। নম্বর দেওয়া হয় গাড়ির রেজিস্ট্রেশন এবং সিরিয়ালের ভিত্তিতে। সে ক্ষেত্রে এক তরুণীর নম্বর প্লেট এমন এসেছে যেখানে লেখা রয়েছে ‘S E X’। এই শব্দের কারণেই বিড়ম্বনায় পড়েছেন ওই তরুণী।

কলেজ পড়ুয়া ওই তরুণীকে তার বাবা শখ করে একটা স্কুটি কিনে দেন। স্কুটি কেনার পর বেশ আনন্দেই ঘুরে বেড়াচ্ছিলেন ওই তরুণী। কিন্তু বাধ সাধে যখন তার ওই স্কুটির নম্বর প্লেট আসে। কিন্তু এই এমন শব্দ লাগানো নম্বর প্লেট আসতেই ওই তরুণী যখন স্কুটি নিয়ে বের হন তাকে নানান সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। এমন ভয়ঙ্কর পরিস্থিতির সম্মুখীন হয়ে ওই তরুণী নিজের স্কুটিটিকে বাড়িতেই বন্দি করে রেখেছেন।

এমন ঘটনাটি ঘটেছে নয়া দিল্লিতে। অন্যদিকে এই ঘটনার পর ওই তরুণী এবং তার পরিবার নম্বর প্লেট বদলানোর জন্য আরটিও অফিসের আবেদন জানিয়েছেন। তাদের এই আবেদনের পর অবশ্য কোনো কাজ হয়নি। কাজ না হওয়ায় ওই পরিবারের দিল্লির পরিবহন দপ্তরের কমিশনের দ্বারস্থ হয়েছেন। তবে তাতেও সুরাহা হয়নি।

পরিবহণ কমিশনের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, নম্বর প্লেট লাগু হওয়ার পর তা বদলানোর কোনো আইন নেই। এমত অবস্থায় ওই পরিবার সমস্যার সমাধান না পেয়ে সাংবাদিকদের দ্বারস্থ হয়েছেন এবং এই ঘটনার জন্য দিল্লির পরিবহন দপ্তরকেই দায়ী করেছেন। তাদের প্রশ্ন, কিভাবে এই ধরনের লেখা নম্বর প্লেটের বের হলো?

আরো পড়ুন