নিজের জন্মদিনে মরণোত্তর চক্ষুদান দুবরাজপুরে

নিজের জন্মদিনে মরণোত্তর চক্ষুদান দুবরাজপুরে

আমরা নিজের বা পরিবার পরিজনদের জন্মদিন পালন করি ধূমধাম সহকারে। কিন্তু বীরভূম জেলার দুবরাজপুরে এক অন্য চিত্র ধরা পড়ল। সমাজ সেবার ব্রত নিয়ে সর্বদা মানুষের পাশে থেকেছেন বীরভূম জেলার দুবরাজপুর পৌরসভার ১৩ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা তথা সমব্যথী ওয়েলফেয়ার সোসাইটি নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সভাপতি তথা সমাজসেবী সায়ন দাঁ। আজ তাঁর ২৫ জন্মদিনে তিনি মরণোত্তর চক্ষুদান করেন। শুধু যে তিনি মরণোত্তর চক্ষুদান করলেন তাই নয়, তাঁর বাবা পেশায় শিক্ষক উজ্জ্বল দাঁ এবং গৃহবধু মা শর্মিষ্ঠা দাঁ তাঁরাও নিজের ছেলের জন্মদিনে তাঁদের মরণোত্তর চক্ষুদান করলেন। এতে খুসি পরিবারের সদস্যরা। সায়ন দাঁ এর বাবা উজ্জ্বল দাঁ জানান, আমাদের ছেলের ২৫ তম জন্মদিনে আমরা মরণোত্তর চক্ষুদান করলাম। এতে আমরা খুবই খুশী। পাশাপাশি মৃত্যুর পরে আমাদের কর্নিয়া অন্ধ মানুষদের চোখে আলো ফোটাতে পারে তাহলে নিজেকে গর্বিত মনে করব। তাছাড়াও একটি সংস্থার সহ সভাপতি প্রিয়নীল পাল জানান, আমার মনে হয় সিউড়ি সাব ডিভিসনে এরকম প্রথম হল। আমরাও খুব খুশী।

আরো পড়ুন