পড়ুয়াদের জন্য সুখবর, সরস্বতী পুজোর আগেই খুলে যাচ্ছে স্কুলের দরজা

পড়ুয়াদের জন্য সুখবর, সরস্বতী পুজোর আগেই খুলে যাচ্ছে স্কুলের দরজা

নিজস্ব প্রতিবেদন : করোনার কারণে দীর্ঘদিন ধরেই বন্ধ রয়েছে স্কুল-কলেজ সহ অন্যান্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান দরজা। তবে সম্প্রতি সংক্রমণ কম হওয়ায় ফের একবার স্কুলের দরজা খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল রাজ্য সরকার। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সোমবার সাংবাদিক বৈঠক করে এমনটাই ঘোষণা করেন।

তবে স্কুল পুনরায় খোলা হলেও সব শ্রেণীর পড়ুয়াদের জন্য খুলছে না স্কুলের দরজা। এবার স্কুলের দরজা খুলছে অষ্টম শ্রেণী থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত পড়ুয়াদের জন্য। এর পাশাপাশি কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ও খুলে দেওয়া হচ্ছে। অষ্টম শ্রেণী থেকে দ্বাদশ শ্রেণী, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের দরজা পুনরায় খুলছে সরস্বতী পুজোর আগে ৩ ফেব্রুয়ারি।

অন্যদিকে অন্যান্য শ্রেণীর পড়ুয়াদের নিয়ে আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হতে চলেছে পাড়ায় শিক্ষালয়। সম্প্রতি রাজ্যজুড়ে স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয় খোলার দাবিতে তীব্র হচ্ছিল আন্দোলন। এমন পরিস্থিতিতে রাজ্য সরকারের এই সিদ্ধান্ত সেই সকল আন্দোলনকে যেমন প্রশমিত করবে ঠিক তেমনি পড়ুয়ারা এবং অভিভাবকরাও রাজ্য সরকারের এই সিদ্ধান্তে খুশি হবেন বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয় খুলে দেওয়ার পাশাপাশি সংক্রমণ কম থাকার কারণে রাজ্যে বিধিনিষেধের ক্ষেত্রেও শিথিলতা আনা হয়েছে। আগামী ১৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত যে বিধি-নিষেধ চলবে সেই বিধিনিষেধে নাইট কার্ফুর সময়সীমা কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। এখন নাইট কার্ফু শুরু হবে রাত্রি ১১টা থেকে এবং চলবে ভোর ৫টা পর্যন্ত।

এছাড়াও আগামীকাল অর্থাৎ ১ ফেব্রুয়ারি থেকে অফিসে হাজির থাকবেন ৭০-৭৫% কর্মী। পার্ক, পর্যটন ক্ষেত্রে খুলে দেওয়ার পাশাপাশি ৫০ শতাংশের বেশি মানুষ প্রবেশ করতে পারবেন। ৭৫ শতাংশ দর্শকদের সিনেমা হলে প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হয়েছে। তবে এখনো রাজনৈতিক মিটিং-মিছিল বন্ধ থাকছে, এমনটাই ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার।

আরো পড়ুন