পথ নাটকের মাধ্যমে পথ সচেতনতা, লোকপুর থানার

পথ নাটকের মাধ্যমে পথ সচেতনতা, লোকপুর থানার

সেখ রিয়াজউদ্দিন, বীরভুম:- মুখ্যমন্ত্রীর মস্তিষ্কপ্রসূত “সেফ ড্রাইভ,সেভ লাইফ”- কর্মসূচি বাস্তবায়নের ফলেই, অকালে ঝরে যাওয়ার হাত থেকে বহু প্রান বাঁচাতে সক্ষম হয়েছে এই প্রকল্প ।সেই জনপ্রিয়তার ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে বিভিন্ন কর্মসূচির মাধ্যে ও “সেফ ড্রাইভ,সেভ লাইফ”এর প্রসার এবং প্রচারে প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে ।অনুরূপ ভাবে বীরভূম জেলা পুলিশের উদ্যোগে পথ চলতি মানুষের মধ্যে ও যানবাহন চলাচল সংক্রান্ত বিষয়ে সচেতন করতে জেলার প্রতিটি থানা এলাকায় বিভিন্ন ধরনের কর্মসূচির মাধ্যমে মাসাধিককাল যাবৎ পালিত হচ্ছে পথ নিরাপত্তা বিষয়ক বিভিন্ন ধরনের সচেতনতা মূলক অনুষ্ঠান ।উল্লেখ্য সারা রাজ্যে পথ দুর্ঘটনার সংখ্যা কমিয়ে আনতেই পুলিশের এই বিশেষ উদ্যোগ বলে জানা গেছে। বিশেষ উল্লেখযোগ্য যে গত কয়েক বছরে যেভাবে পথ-দুর্ঘটনা, বিশেষ করে বাইক দুর্ঘটনার সংখ্যা বেড়ে গিয়েছিল, তা নিয়মিত সচেতনতার মাধ্যমে অনেকখানি নিয়ন্ত্রণে এসেছে বলে সরকারি পরিসংখ্যান থেকে জানা গেছে। ‘সেফ ড্রাইভ, সেভ লাইফ’ প্রকল্প বাস্তবায়নের ফলেই যে এই দুর্ঘটনার সংখ্যা কমেছে, তা একবাক্যে সকলেই স্বীকার করছেন।সেই হিসেবে বুধবার বীরভূম জেলার লোকপুর থানার উদ্যোগে এবং ওয়াটার ফর পিপল ইন্ডিয়া ট্রাস্ট নামক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সহযোগিতায় পথ নাটকের মাধ্যমে সেফ ড্রাইভ সেভ লাইফ তথা পথ নিরাপত্তা বিষয়ক কর্মসূচি পালন করেন।এদিন লোকপুর থানার অধীনস্থ লোকপুর বাসস্ট্যান্ড,ভাড্ডি, আলিয়ট ও মাঝপাড়ায় পথ নাটকের মাধ্যমে পথ নিরাপত্তা বিষয়ক সচেতনতার বার্তা দেওয়া হয়।উপস্থিত ছিলেন লোকপুর থানার পিএসআই অনিমেষ মন্ডল,এএস আই জীবন সরেন, স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার পক্ষে জীষ্ণু হাটি, গিরিধারী সেন, প্রমুখ।এক সাক্ষাৎকারে অনুষ্ঠান সম্পর্কে সংস্থার কর্মী জীষ্ণু হাটি জানান পথ নিরাপত্তা কর্মসূচির বৃত্তান্ত।

আরো পড়ুন