ফের ভাগ্য ফিরল ভুবন বাদ্যকরের, হয়ে উঠলেন বড় ব্যাঙ্কের প্রচারের মুখ

ফের ভাগ্য ফিরল ভুবন বাদ্যকরের, হয়ে উঠলেন বড় ব্যাঙ্কের প্রচারের মুখ

নিজস্ব প্রতিবেদন : গত বছর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় অন্যতম সেনসেশন হয়ে রয়েছেন বীরভূমের দুবরাজপুর ব্লকের অন্তর্গত লক্ষ্মীনারায়ণপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের কুড়ালজুড়ি গ্রামের ভুবন বাদ্যকর। তিনি রাতারাতি সেলিব্রিটি হয়ে ওঠেন মূলত বাদাম বিক্রি করার সময় তার গাওয়া কাঁচা বাদাম গানের দৌলতে। এই গান সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়ার পর তিনি এবং তাঁর গান এখন বিশ্বখ্যাত।

তবে সম্প্রতি কয়েকদিন ধরেই যেন থিতিয়ে ছিলেন ভুবন বাদ্যকর। সেই ভাবে তাকে আর পর্দায় লক্ষ্য করা যাচ্ছিল না। দিন কয়েক থিতিয়ে থাকার পর ফের ভাগ্য ফিরল ভুবন বাদ্যকরের। একটি ব্যাঙ্কের হাত ধরে ফের সোশ্যাল মিডিয়া কাঁপাচ্ছেন তিনি। শুধু সোশ্যাল মিডিয়া কাঁপানো নয়, পাশাপাশি ওই ব্যাঙ্কের হাত ধরে তিনি এখন ওই ব্যাঙ্কের প্রচারের মুখ হয়ে উঠেছেন।

দেশে যে সমস্ত ব্যাঙ্ক রয়েছে তার মধ্যে জনপ্রিয় একটি ব্যাঙ্ক হল বন্ধন ব্যাঙ্ক। এবার এই ব্যাঙ্কেরই প্রচারের মুখ হয়ে উঠলেন তিনি। বন্ধন ব্যাঙ্কের তরফ থেকে সম্প্রতি তাদের সোশ্যাল হ্যান্ডেলে একটি ভিডিও আপলোড করা হয়েছে। যে ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে এই বন্ধন ব্যাঙ্কের ভূয়শী প্রশংসা করছেন কাঁচা বাদাম গানের স্রষ্টা ভুবন বাদ্যকর। ব্যাঙ্কের ভূয়সী প্রশংসা করার পাশাপাশি তার জীবনে এই ব্যাঙ্কের অবদানের কথা তুলে ধরেছেন তিনি। সেই ভিডিও এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল।

ভিডিওটিতে লক্ষ্য করা গিয়েছে, ভুবন বাদ্যকর কোন একটি বন্ধন ব্যাঙ্কের শাখায় ঢুকছেন। সেখানে ব্যাঙ্কের কর্মীদের সঙ্গে কথা বলার পাশাপাশি নিজের জীবনে বন্ধন ব্যাঙ্কের অবদানের কথা উল্লেখ করছেন। পাশাপাশি ওই শাখায় ভুবন বাদ্যকরকে তার বিখ্যাত কাঁচা বাদাম গানটি গাইতে দেখা গিয়েছে, আর সেই গানের তালে কোমর দোলাতে দেখা গিয়েছে ব্যাঙ্ক কর্মীদের।

<iframe src=”https://www.facebook.com/plugins/video.php?height=314&href=https%3A%2F%2Fwww.facebook.com%2Fbandhanbank.in%2Fvideos%2F495373845392082%2F&show_text=false&width=560&t=0″ width=”560″ height=”314″ style=”border:none;overflow:hidden” scrolling=”no” frameborder=”0″ allowfullscreen=”true” allow=”autoplay; clipboard-write; encrypted-media; picture-in-picture; web-share” allowFullScreen=”true”></iframe>

এই ভিডিওটিতে লক্ষ্য করা গিয়েছে ভুবন বাদ্যকর বলছেন, তাদের গ্রামে অনেক বন্ধন ব্যাঙ্ক কর্মীরা আসতেন। গ্রামের বিভিন্ন জনকে লোন দিতেন। সেই লোন দেওয়া দেখে একদিন তিনি লোন গ্রহীতাদের জিজ্ঞাসা করেন, কিভাবে লোন নিতে হয় এবং কত সুদ ইত্যাদি। তাদের থেকে জেনে ভুবন বাদ্যকর নিজে একটি লোন নেন তার বাদাম ব্যবসা বৃদ্ধি করার জন্য। সেই লোন নেওয়ার মাধ্যমে এই ভুবন বাদ্যকর নিজের বাদাম বিক্রির ব্যবসা বৃদ্ধি করেছিলেন বলেও দাবি করেছেন।

আরো পড়ুন