মুখ্যমন্ত্রীর মামার বাড়িতে পরাজিত তৃণমূল

মুখ্যমন্ত্রীর মামার বাড়িতে পরাজিত তৃণমূল

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মামার বাড়িতেই পরাজিত হল তৃণমূল। এনিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছে তৃণমূল। বিজেপির দাবি অনুন্নয়ন এবং সংগঠনের জেরেই শাসক দলের প্রার্থী পরাজিত হয়েছে।
প্রসঙ্গত, বীরভূমের রামপুরহাট ১ নম্বর ব্লকের কুসুম্বা গ্রামে রয়েছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মামার বাড়ি। ওই গ্রামে তিনটি আসনের মধ্যে দুটি আসনে জয়লাভ করেছে বিজেপি প্রার্থীরা। একটি আসনে জয়লাভ করলেন তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী। এই পঞ্চায়েতের ৩১ নম্বর বুথে ভোট দেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মামা অনিল মুখোপাধ্যায়ের পরিবার। এই সংসদে জয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থী অর্চনা হাজরা। হারলেন তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী সাথী লেট। অপর দিকে এই গ্রামের ৩২ নম্বর বুথেও জয়ী হয়েছেন বিজেপির প্রার্থী গঙ্গাধর হাজরা। এই সংসদেও হারলেন তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী গৌতম লেট। তবে ২৯ নম্বর সংসদে জয়ী হয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী আদিত্য দত্ত।
এনিয়ে বিজেপির ব্লক সভাপতি তাপস মণ্ডল বলেন, “মানুষ বিজেপিকে গ্রহণ করেছে। তাই আমরা জিতেছি। তাছাড়া গত নির্বাচনে গায়ের জোরে ওরা পঞ্চায়েত দখল করেছিল। সেটা মানুষ মেনে নিতে পারেনি। তাই বদলা ব্যালটে দিয়েছেন মানুষ”।
বিজেপি নেতা শুভাশিস চৌধুরী বলেন, “ওই অঞ্চলে সব থেকে বেশি উন্নয়ন হয়েছে মুখ্যমন্ত্রীর মামার বাড়ির। মানুষ চোখের সামনে সব দেখতে পাচ্ছে। তাই মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে”।
যদিও পরাজয় নিয়ে কিছু বলতে চাননি মুখ্যমন্ত্রীর মামাতো ভাই নীহার মুখোপাধ্যায়। তৃণমূলের অঞ্চল সভাপতি বালক লেট বলেন, “বিরোধীরা একজোট হয়ে আমাদের হারিয়েছে। ভোটের পর এনিয়ে পর্যালোচনা করব”।

আরো পড়ুন