‘স্ট্যামিনা আছে’, বিজেপি রাজ্য সভাপতির প্রশংসায় অনুব্রত মণ্ডল

‘স্ট্যামিনা আছে’, বিজেপি রাজ্য সভাপতির প্রশংসায় অনুব্রত মণ্ডল

নিজস্ব প্রতিবেদন : বঙ্গ বিজেপিতে গত বিধানসভা নির্বাচনের পর থেকেই ভাঙ্গন লক্ষ্য করা যাচ্ছে। কেউ দল ছাড়ছেন, কেউ আবার দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিচ্ছেন। এমন অন্তর্দ্বন্দ্বের মধ্যেই বঙ্গ বিজেপিতে রাজ্য সভাপতি হিসাবে দিলীপ ঘোষকে সরিয়ে বসানো হয় সুকান্ত মজুমদারকে।

তবে সুকান্ত মজুমদার রাজ্য সভাপতি হিসাবে এসেও দলের ভাঙ্গন ঠেকাতে পারেননি। একাধিক বিধায়ক দল ছেড়েছেন, আবার একাধিক নেতা, সাংসদ প্রতিনিয়ত দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিচ্ছেন। এদের মধ্যে আবার কেউ কেউ ইতিমধ্যেই বিদ্রোহ ঘোষণা করে হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপও ত্যাগ করেছেন। তবে এসবের মাঝেই বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদারের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হলেন।

শনিবার বোলপুরের তৃণমূল দলীয় কার্যালয়ে বিজেপি ছেড়ে কর্মীদের তৃণমূলে যোগদানের একটি কর্মসূচি ছিল। সেই কর্মসূচি চলাকালীন অনুব্রত মণ্ডল সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদারের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হলেন। এই অনুব্রত মণ্ডলই কিছুদিন আগে দিলীপ ঘোষ এবং সুকান্ত মজুমদারকে ‘ভেড়া ছাগল’ বলে কটাক্ষ করেছিলেন।

অনুব্রত মণ্ডল এদিন বলেন, “বিজেপির রাজ্য সভাপতির নাম করতে হবে। ভাল সভাপতি। ধরাধর ফেলে দিচ্ছে, স্ট্যামিনা আছে। সুকান্তবাবুকে আমি ধন্যবাদ জানাই। গুড ডিসিশন। কিছু করলেই ফেলে দাও।”

অন্যদিকে এদিন তিনি সাংবাদিকদের মুখোমুখি হওয়ার সময় প্রশ্ন ওঠে ‘ভোট প্রচারে আপনি কি শিলিগুড়ি যাবেন?’ এই প্রশ্নের উত্তরে অনুব্রত মণ্ডল জানান, “শরীর ভালো নাই। শরীর ভালো থাকলে দেখবো” এছাড়াও আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে লড়াইটা কেমন হবে এই প্রশ্ন উঠলে অনুব্রত মণ্ডল বলেন, “লড়াই ভালো হবে। কার সঙ্গে লড়বো বলুন তো? মিডিয়ার সঙ্গে, না অন্য দলের সঙ্গে?”

আরো পড়ুন