পাথরচাপুরী মাজারে চাদর চাপালেন অনুব্রত

বাড়ি ফেরার ১০ দিন পর, বাড়ি থেকে বেরোলেন অনুব্রত মন্ডল। গেলেন পাথরচাপুরী মাজারে চাদর চাপাতে।

দীর্ঘ ৪৫ দিন কলকাতায় নানান কারনে থাকার পর গত ২০ মে নিজের বাড়িতে ফেরেন অনুব্রত মন্ডল। তার বাড়ি ফেরার জন্যে এলাহী আয়োজনও করা হয়েছিল তৃণমূলের তারফে। তারপর আর বাড়ি থেকে বেরোননি অনুব্রত বাবু। এর মাঝে একবার গরু পাচার কান্ডে ও একবার কয়লা পাচার কান্ডে CBI তলব করলেও তিনি যাননি। অসুস্থতার কারণ দেখিয়েছেন। এমন কি, তার আইনজীবী দাবি করেন হাসপাতাল থেকে তাকে ১৫ দিন রেস্ট নিতে বলেছেন, তাই তিনি যেতে পারবেন না।

আর তার CBI এর কাছে হাজিরা না দেওয়াতে নানান কটাক্ষ উড়ে আসে বিরোধীদের তরফে। তবে ১৫ দিন যেতে না যেতেই এবার রেস্ট না নিয়েই বাড়ি থেকে বেরিয়ে পড়লেন অনুব্রত মন্ডল। আজ তিনি গেলেন তার বোলপুরের বাড়ি থেকে প্রায় ৪৫ কিলোমিটার দূর পাথরচাপুরী মাজারে। সেখানে গিয়ে তিনি মাজারে চাদর চাপান।

এদিন চাদর চাপানোর পর অনুব্রত মন্ডল দাবি করেন , তিনি মমতা ব্যানার্জি, অভিষেক ব্যানার্জি, তার মেয়ের জন্যে মাজারে চাদর চাপালেন। শারীরিক অসুস্থতা প্রসঙ্গে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন, দেখতেই পেলেন এই টুকু হাঁটতে আমাকে দুবার দাঁড়াতে হলো। শরীর এখনো খারাপ আছে।

তবে CBI এর কাছে হাজিরা দেবার পর তাকে যেভাবে হাসপাতালে বুকে হাত দিয়ে ঢুকতে দেখা গিয়েছিলো সেভাবে কিন্তু আজ তাকে দেখা যাইনি। তবে তার নিরাপত্তা কর্মীদের কাঁধে হাত রেখেই মাজারে প্রবেশ করে।

আরো পড়ুন